ঝিনাইদহে প্রতিবন্ধী যুবতীকে ধর্ষণের অভিযোগ: আটক ৪

ঝিনাইদহে প্রতিবন্ধী যুবতীকে ধর্ষণের অভিযোগ: আটক ৪

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি : ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে হিন্দু সম্প্রদায়ের বাক ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী এক যুবতী (১৬) কে ধর্ষণের অভিযোগে ৪ যুবককে আটক করেছে থানা পুলিশ। শনিবার (৯ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে উপজেলার বানুড়িয়া গ্রাম থেকে তাদের আটক করা হয়। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার ত্রিলোচনপুর ইউনিয়নের বানুড়িয়া গ্রামে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন ঝিনাইদহ পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামান। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন থানার ওসি ইউনুচ আলী।

ধর্ষিতার মা জানান, গত বুধবার রাত সাড়ে ৮ টার দিকে বালিয়াডাঙ্গা গ্রামের আব্দুর রহমান ওরফে উজ্জ্বলের ছেলে সেলিম পানি খাওয়ার কথা বলে তার কাছে একটি গ্লাস চায়। সে সময় বাড়ির আশপাশে আরো ৩ জন যুবক দাঁড়িয়ে ছিল। তিনি সেলিম কে গ্লাস দিয়ে প্রয়োজনীয় কাজে পাশের বাড়ি যান। পরে ফিরে এসে দেখেন তার প্রতিবন্ধী মেয়ে বাড়ির বারান্দায় নেই। পরে অনেক খোঁজাখুজি করে তাকে বাড়ির পাশের একটি বাগানের মধ্যে বিবস্ত্র অবস্থায় পাওয়া যায়।

তিনি আরো বলেন, প্রথমে বিষয়টি স্থানীয়ভাবে মিমাংসা করে দিবে বলে তাকে গ্রামবাসী আশ্বাস্ত করে। তাই লোক লজ্জার ভয়ে থানা পুলিশকে জানাননি। পরে বিষয়টি জানাজানি হয়ে গেলে শনিবার (৯ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে পুলিশ যেয়ে মেয়েটিকে বাড়ি থেকে উদ্ধার করে নিয়ে আসে।

সে সময় বালিয়াডাঙ্গা গ্রামের আব্দুর রহমান উজ্জ্বলের ছেলে সেলিম (২২), বানুড়িয়া পশ্চিমপাড়ার মৃত নজরুল ইসলাম লালের ছেলে আশিক (২৮). বানুড়িয়া দক্ষিণপাড়ার নুর আলীর ছেলে রাকিব হোসেন (২১) ও একই পাড়ার হায়দার আলীর ছেলে শাহেদ আলী (২০) কে পুলিশ আটক করে থানায় নিয়ে যায়। ওসি আরো বলেন, ধর্ষণের ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে পুলিশ ৪ যুবক কে আটক করেছে। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। আজ রোববার প্রতিবন্ধী যুবতীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ঝিনাইদহ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন............