পাবনায় স্কুলের ছাদ ধ্বসে স্কুল ছাত্র আহত

0
206
পাবনায় স্কুলের ছাদ ধ্বসে স্কুল ছাত্র আহত

পাবনা প্রতিনিধি : পাবনা সদর উপজেলার টেবুনিয়া ওয়াছিম পাঠশালায় ক্লাস রুমের ছাদের প্লাস্টার ধ্বসে মেহেদি হাসান নামে ১ ছাত্র আহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার ১৬ আগস্ট বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ক্লাস চলাকালীন সময় এ দুর্ঘটনা ঘটে। আহত ছাত্র মেহেদি হাসান টেবুনিয়া ওয়াছিম পাঠশালার ৮ম শ্রেণির (খ) শাখার ছাত্র।

বিদ্যালয়ের শিক্ষক ও ছাত্র ছাত্রীরা জানায়, বিদ্যালয়ের জরার্জিণ ঝুকিপূর্ণ ভবনের ক্লাস রুমে প্রতিদিনের মত আজও পাঠদান গ্রহন করে বিদ্যালয়ের ছাত্র ছাত্রীরা। ক্লাস চলাকালিন সময় হঠাৎ ছাদের প্লাস্টার ধ্বসে পড়ে ওই ছাত্রের উপর। এতে রক্তাক্ত জখম হয় সে।

বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক মোঃ নাসিম উদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মেহেদি হাসানকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বাড়ি পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, পাবনা সদরের টেবুনিয়া ওয়াছিম পাঠশালায় অনেকদিন ধরেই ঝুকিপূর্ণ ভবনে চলছে পাঠদান। এতে আতঙ্কের মধ্যে রয়েছেন বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ অভিভাবকরা।

১৯৬৪ সালে প্রতিষ্ঠিত টেবুনিয়া ওয়াছিম পাঠশালায় সত্তুরের দশকে নির্মান করা ভবনগুলো মুলত সংস্কারের অভাবে ঝুকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে।
এ বিদ্যালয়ের কয়েকটি ভবনের দেয়ালে ফাটল দেখা দিয়েছে। খসে পরছে প্লাস্টার। এ ছাড়াও কয়েকটি পিলার ও দেয়ালে ফাটল ধরায় যে কোন সময়ে ভেঙে পড়ারও আশঙ্কা করছেন শিক্ষকসহ ছাত্রছাত্রীরা।

এর আগে ঝড়ে স্কুলের একটি দেয়ালের কার্ণিশের একটা বড় অংশ ভেঙে মাটিতে পড়ে যায়। সে সময় স্কুল ভবনে ছাত্র-ছাত্রী অবস্থান না করায় বড় ধরনের কোন দুর্ঘটনা ঘটেনি।

বর্তমানে এ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীর সংখ্যা রয়েছে প্রায় ৭ শতাধিক। এই বিদ্যালয়ের মূল ভবনটি এমনিতেই জরাজীর্ণ। তার উপর আবার দো-তলা হওয়ায় ক্লাসরুমসহ কয়েকটি রুমের ছাদের ভীতসহ ৩টি ভবনের কয়েকটি স্থানে ফাটল দেখা দিয়েছে। যে কোনো সময় স্কুল ভবনটি পড়ে যেতে পারে এই ভয়ে ছাত্রছাত্রীরা ক্লাস চলাকালীন ভবনের দিকে তাকিয়ে ক্লাস করে। এতে করে পাঠদান ব্যহত হচ্ছে বলে শিক্ষার্থীদের অভিযোগ।

এছাড়াও শিক্ষকদের বসার রুম, প্রধান শিক্ষকের রুম ও মেয়েদের কমন রুমেরও পলেস্তারা খসে পড়ায় আতঙ্কে রয়েছেন সবাই। স্কুলের প্রধান শিক্ষকসহ শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা স্কুলটি দ্রুত সংস্কারের আবেদন জানান। সেই সাথে কর্তৃপক্ষের তড়িৎ পদক্ষেপের জন্য দৃষ্টি আকর্ষন করেন।

এলাকাবাসীর দাবী স্কুলটি দ্রুত সংস্কার না করলে শিক্ষার্থীদের শিক্ষা জীবন মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন :

আপনার মন্তব্য লিখুন............